হঠাৎ কামরুল বিন ওলিপুরীর প্রতি শুভকামনা জানালেন জামায়াত আমীর

প্রকাশিত: ৩:৫৩ অপরাহ্ণ, মার্চ ৮, ২০২১

বাংলাদেশের আলোচিত ইসলামি আলোচক আল্লামা নুরুল ইসলাম ওলিপুরীর সন্তান মাওলানা কামরুল ইসলাম ওলিপুরীকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর আমীর ড. শফিকুর রহমান।

জামায়াত আমীরের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে ২০ ঘন্টা আগে দেয়া এক পোস্টে তিনি বলেন – ‘মাওলানা কামরুল ইসলাম বিন ওলিপুরী পবিত্র কুরআন ও হাদীসে রাসূল (ﷺ)-এর উদ্ধৃতি দিয়ে সম্প্রতি ইকামাতে দ্বীন, খেলাফতের দায়িত্ব এবং দাওয়াতে দ্বীন সম্পর্কে যে বক্তব্য উপস্থাপন করেছেন, তার জন্য আল্লাহ সুবহানাহু ওয়া তা’য়ালার শুকরিয়া আদায় করছি। মহান আল্লাহ তাঁর বান্দাহর ইলম, আমল ও হায়াতে বারাকাহ দান করুন। আমীন।’

জামায়াত আমীরের দেযা ফেসবুক পোস্ট।

তবে ঠিক কি কারণে হঠাত করে জামায়াত আমীর কামরুল ইসলাম ওলিপুরীকে নিয়ে ফেসবুক পোস্ট দিলেন তা জানা যায়নি। তাছাড়া ৭ ঘন্টা আগে ফেসবুকে কামরুল ইসলাম ওলিপুরী তার এক ফেসবুক পোস্টে ‘চরমোনাই ঠেকানোর’ ঘোষণা দিয়েছিলেন। সেখানে তিনি লিখেছেন – “হকপন্থী” নামধারী চরম বিভ্রান্ত চর্মোনাই পীরের দরবারে গমনকারী কতক আলেমদের মারাত্মক ভ্রষ্টতা বিচ্ছুরণকারী বক্তব্যের অনাকাঙ্ক্ষিত প্রসঙ্গ! সামনে রেখে অচিরেই দলীল ভিত্তিক আলোচনা শুরু করতে যাচ্ছি ইন শা আল্লাহ। লক্ষ্য করলাম, যেহেতু এসব মারাত্মক বিষয় নিয়ে অদ্যাবধি সুস্পষ্টভাবে কেউ মুখ খোলতে চাচ্ছেন না, হয়তো আমি অধমকেই উম্মাহ’র উদ্দেশ্য কিছু বলতে হবে!..

কামরুল ইসলাম ওলিপুরীর চরমোনাই নিয়ে লেখা পোস্টটি হুবহু তুলে ধরা হলো –

চর্মোনাই ফেতনাবাজদের নতুন অপকৌশল রুখতে আহলুস্ সুন্নাহ পন্থী হাক্কানী উলামা কিরাম দের সমীপে একটি জরুরী আবেদন!

………অবশেষে সমকালীন প্রেক্ষাপট নিয়ে কুরআন-সুন্নাহ ও ইসলামী শারী’আহ ভিত্তিক কিছু জরুরী নির্দেশনা উম্মাহ’র সামনে পেশ করতে গিয়ে বর্তমান সময়ে ব্যাপক আলোচিত প্রসঙ্গ হিসেবে চলে আসলো “হক পন্থী” নামধারী চরম বিভ্রান্ত চর্মোনাই পীরের দরবারে গমনকারী কতক আলেমদের মারাত্মক ভ্রষ্টতা বিচ্ছুরণকারী বক্তব্যের অনাকাঙ্ক্ষিত প্রসঙ্গ!

     তাই একে সামনে রেখে অচিরেই দলীল ভিত্তিক আলোচনা শুরু করতে যাচ্ছি ইন শা আল্লাহ।
লক্ষ্য করলাম, যেহেতু এসব মারাত্মক বিষয় নিয়ে অদ্যাবধি সুস্পষ্টভাবে কেউ মুখ খোলতে চাচ্ছেন না, হয়তো আমি অধমকেই উম্মাহ’র উদ্দেশ্য কিছু বলতে হবে!… তবে তার আগে আমার আরো কিছু চাক্ষুষ তথ্য প্রমাণের প্রয়োজন রয়েছে। অন্যথায় পীর পূজারী, দল পূজারী কিংবা স্বার্থের কাছে তুচ্ছ মূল্যে বিক্রি হওয়া কতক আলেম বা মুফতী লক্ববধারী চরম ‘আসাবিয়্যাহ’ গ্রস্তরা আমাকে ভুল প্রমাণ করতঃ চাক্ষুষ বিভ্রান্ত চর্মোনাই পীর এবং তার পূজারীদেরকে সঠিক প্রমাণ করার অপচেষ্টায় উঠেপড়ে লেগে যাবে!

তাই অনলাইনে সক্রিয় থাকা আমার সকল শুভাকাঙ্ক্ষী এবং আহলুস্ সুন্নাহ পন্থী হাক্কানী রাব্বানী আলেমদের কাছে আপাতত এইটুকু সহযোগিতা চাচ্ছি :- যার কাছেই চর্মোনাই পীর গোষ্ঠির বিভ্রান্তিকর বক্তব্য, লেখনী এবং ওদের ইদানিংকার মাহফিলের সকল বক্তব্য সহ যত্তসব ভিডিও ওডিও ছবি ও তথ্য প্রমাণ রয়েছে সেগুলো আমার হোয়াটস্ এপ বা মেসেঞ্জারে প্রদান করে বাঙ্গালী মুসলিম জাতিকে ওদের চরম পথভ্রষ্টতার ফেতনা থেকে বাঁচানোর আপ্রাণ প্রচেষ্টায় শরীক থাকবেন ইন শা আল্লাহ।

পাশাপাশি সবার কাছে আমার এই জরুরী বার্তার ব্যাপক “শেয়ার” কামনা করি যাতে করে উম্মাহ’র প্রতিটি সদস্যের কাছে সহজে পৌঁছে যায় সহীহ দ্বীন সংরক্ষণে আমাদের এই ক্ষুদ্র প্রয়াস।

তবে কামরুল ইসলাম ওলিপুরীর পোস্ট বিষয়ে তার ব্যাপারে সমালোচনার ঝড় বইছে ফেসবুকে। কেউ কেউ অভিযোগ করে বলছেন তিনি কারো প্ররোচনায় এ কাজগুলো করছেন।

মাওলানা জুবায়ের বিন আরমান এ বিষয়ে লেখেন –  “চরমোনাই হকপন্থী নয়” এমন একটি আওয়াজ উঠাতে চাইছেন আল্লামা অলিপুরী দাঃবাঃ -এর সাহেবজাদা কামরুল ইসলাম। এব্যাপারে তিনি শুভাকাঙ্ক্ষীদেরে এগিয়ে আসার আহবান করেছেন!

আল্লাহ পাক এই ব্যক্তিকে হেদায়াত দিন। গতকাল এক বক্তাকে নিয়ে কিছু লিখেছিলাম। বন্ধুদের ব্যাপক সমর্থনও ছিল লেখাটিতে। তবুও গিবত হয়ে যাওয়ার ভয়ে কেটে দেই৷

আর এই বেচারারা কিনা আস্ত একটা হকপন্থী দলকেই গিলে খাইতে চাইছেন! এদের কি আল্লাহর ভয় নাই!? আবারো দোয়া করি, আল্লাহ পাক হেদায়াত দিন।

খুবই আদবের সাথে আরজ করছি, ব্যক্তি যত বড়ই হননা কেন? তিলকে তাল করে মুসলমানকে ইহুদী নাসারা বানিয়ে যারা প্রচার করেন তাদের এই কঠোরতার সাথে আমরা একমত নই। তবে তারা আমাদের মাথার তাজ। তাদের বাকি বক্তব্যগুলো  আমাদের পাথেয়! আল্লাহকে ওয়াস্তে উম্মাহকে দূরে ঠেলে না দিয়ে যথাসম্ভব কাছে রাখুন।

চরমোনাই অনুসারীরা আটরশি দেওয়ানবাগী বা রাজারবাগী নয় যে, তাদেরে বাতিল প্রমাণে উঠেপড়ে লাগবেন! তবুও যদি এরকম অপচেষ্টা করেন তবে উম্মাহ আপনাদেরে বিচ্ছন্নতাবাদি ভাবতে শুরু করবে। সব হকপন্থীরাই আমাদের সম্পদ।

প্রসঙ্গত : মাওলানা কামরুল বিন ওলিপুরীর বাবা আল্লামা নুরুল ইসলাম ওলিপুরী একাধিকবার চরমোনাইতে গিয়েছেন এবং তিনি তার একাধিক বক্তব্যে চরমোনাইকে দেওবন্দি আলেমদের একটি হকপন্থী দল বলেছেন। এছাড়াও একাধিক লিখনী ও বক্তব্যে তিনি জামায়াতে ইসলামীকে আহলে সুন্নাত ওয়াল জামায়াত ও দেওবন্দীদের সাথে আকিদাগতভাবে মিল না থাকা একটি দল হিসেবে বর্ণনা করেছেন।

মন্তব্য করুন