এবার ভারত-পাকিস্তানকে বন্ধু হিসেবে দেখতে চান মালালা

সবখানে শত্রুতা দৃশ্যমান

প্রকাশিত: ১১:১০ অপরাহ্ণ, মার্চ ১, ২০২১

স্বাধীনতার পর থেকে পরস্পরের শত্রু ভারত ও পাকিস্তান। ৭৪ বছরের মধ্যে দেশ দুটির মৈত্রী দেখা যায়নি। রাজনীতি, বাণিজ্য, খেলা- সব জায়গায় এ শত্রুতা দৃশ্যমান। এমন দুটি দেশকে বন্ধু হিসেবে দেখতে চান মালালা ইউসুফজাই।

দুই দেশের সীমান্তে গোলাবর্ষণ যখন প্রায় রুটিন হয়ে দাঁড়িয়েছে, ঠিক সেই সময়ে দুই প্রতিবেশী দেশের উদ্দেশে শান্তির বার্তা দিলেন তিনি।

রোববার ভারতের জয়পুর সাহিত্য উৎসবে ভারচুয়ালি যোগ দেন নোবেলজয়ী মালালা। সেখানে তিনি বলেন, ‘আপনারা ভারতীয়, আমি পাকিস্তানি। আমরা আমাদের মতো ভালো আছি।

তাহলে এত বিদ্বেষ কেন? সীমান্ত, বিভাজন ও বিভাজনের মাধ্যমে আলাদা করে জয় করা- এসব পুরনো দর্শন এখন আর কাজ করে না। মানুষ হিসেবে আমরা সবাই শান্তিতে থাকতে চাই।’

মালালা বলেন, আমরা একটা ভ্রমের মধ্যে আছি। আমরা ভুলে যাচ্ছি, ভারত ও পাকিস্তানের আসল শত্রু হলো- দারিদ্র্য, বৈষম্য ও অসাম্য।

নিজেদের মধ্যে লড়াই না করে দুই দেশের উচিত এ শত্রুগুলির বিরুদ্ধে যৌথভাবে লড়াইয়ে অবতীর্ণ হওয়া। আমি ভারত ও পাকিস্তানকে প্রকৃত বন্ধু হিসেবে দেখতে চাই।’

সংখ্যালঘু নিপীড়ন নিয়েও কথা বলেন মালালা। ইসলামাবাদকে অস্বস্তিতে ফেলে তার বক্তব্য, ‘পাকিস্তানে হিন্দু, শিখ ও খ্রিস্টান সংখ্যালঘুরা বিপন্ন। একইভাবে ভারতে মুসলিম ও দলিতরা ভারতে সুরক্ষিত নন।’

মন্তব্য করুন