খুলনায় কাল থেকে শুরু হচ্ছে চরমোনাইর নমুনায় তিন দিনব্যাপী মাহফিল

প্রকাশিত: ৯:০৪ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ২৭, ২০২১

শেখ নাসির উদ্দিন, খুলনা প্রতিনিধি: খুলনায় চরমোনাইর নমুনায় তিনদিনব্যাপী ৩৬ তম বাৎসরিক ওয়াজ মাহফিল আগামীকাল বৃহস্পতিবার (২৮ জানুয়ারী) থেকে শুরু হচ্ছে। খালিশপুর থানার আওতাধীন গোয়ালখালী জামিয়া রশিদিয়া ক্যাডেট স্কীম মাদ্রাসা ময়দানে এই বিশাল মাহফিল অনুষ্ঠিত হবে।

বাংলাদেশ মুজাহিদ কমিটি খুলনা জেলা সাধারণ সম্পাদক শেখ হাসান ওবায়দুল করীম জানান, প্রথম দিন বৃহস্পতিবার (২৮ জানুয়ারী) বাদ মাগরিব উদ্বোধনী বয়ানের মাধ্যমে তিনদিনব্যাপী বাৎসরিক মাহফিল শুরু হবে। উদ্বোধনী বয়ান করবেন আমীরুল মুজাহীদিন চরমোনাই পীর মুফতী সৈয়দ মুহাম্মাদ রেজাউল করীম।

দ্বিতীয় দিন শুক্রবার (২৯ জানুয়ারী) বাদ ফজর বয়ান করবেন চরমোনাই পীর মুফতী সৈয়দ মোহাম্মদ রেজাউল করীম, বাদ মাগরিব বয়ান করবেন নায়েবে আমীরুল মুজাহিদীন ও শায়েখে চরমোনাই মুফতী সৈয়দ মোহাম্মদ ফয়জুল করীম।

তৃতীয় দিন শনিবার (৩০ জানুয়ারী) বাদ ফজর বয়ান করবেন নায়েবে আমীরুল মুজাহিদীন ও শায়েখে চরমোনাই মুফতী সৈয়দ মোহাম্মাদ ফয়জুল করীম, এছাড়া সকালে মাদ্রাসার ছাত্রদের নিয়ে পুনর্মিলনী অনুষ্ঠান আবনায়ে রশীদিয়া, ইশা ছাত্র আন্দোলন খুলনা নগর ও জেলার ছাত্র গণ জমায়েত, বিকাল ৩ টায় ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ নগর ও জেলার উদ্দোগে কর্মী সম্মেলন এবং ইউপি চেয়ারম্যান প্রার্থী পরিচিতি, সন্ধ্যায় ইশা ছাত্র আন্দোলন বিএল কলেজ শাখার বার্ষিক সম্মেলন, রাত নয়টায় বয়ান করবেন আমীরুল মুজাহিদীন ও চরমোনাই পীর মুফতী সৈয়দ মোহাম্মদ রেজাউল করীম।

রবিবার (৩১ জানুয়ারী) আখেরি বয়ান ও মোনাজাত করবেন চরমোনাই পীর মুফতী সৈয়দ মোহাম্মাদ রেজাউল করীম। এছাড়াও আজ বৃহস্পতিবার থেকে তিনদিনব্যাপী বাংলাদেশ কোরআন শিক্ষা বোর্ড খুলনা বিভাগীয় শাখার উদ্দোগে কোরআন প্রশিক্ষণ কার্যক্রম অনুষ্ঠিত হবে। সকল প্রোগামে অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন চরমোনাই পীর ও শায়েখে চরমোনাই।

তিন দিনব্যাপী মাহফিলে আরও আলোচনা করবেন হাফিজুর হুজুর রহ. এর জামাতা আল্লামা খালিদ সাইফুল্লাহ, মাও. নুরুল হুদা ফয়েজী, মুফতী নুরুল আমীন, হাফেজ মাও. মুশতাক আহমেদ, টাঙ্গাইলের মাও. রেজাউল করীম, চরমোনাই পীর রহ. এর খলিফা হাফেজ মাও. আব্দুল আউয়াল, মাও. আলী আজাদ সাকাফী, মাও. আব্দুর রাজ্জাক, মাও. মিজানুর রহমান, আব্দুল গনী জমাদ্দার, শেখ হাসান ওবায়দুল করীম, আলহাজ্ব উমাইর হুসাইনী।

মন্তব্য করুন