শীতের শুরুতেই পা ফাটার সমস্যা, জেনে নিন দূর করার ঘরোয়া উপায়

প্রকাশিত: ১০:৩১ পূর্বাহ্ণ, নভেম্বর ১৫, ২০২০

বাতাসে শীতের পরশ আসতে না আসতেই এই সময়টাতে ত্বকের নানা সমস্যা দেখা দেয়। বাতাসে আর্দ্রতার পরিমাণ কমে যাওয়ায় ত্বকে শুষ্ক হয়ে যায়। আর সে কারণেই পায়ের পাতার চামড়া খসখসে ওঠে যেতে থাকে।

শীতের রুক্ষ আবহাওয়ায় ময়েশ্চরারের অভাবে পায়ের ত্বক শুষ্ক হয়ে যায় ফলে পা ফাটার সমস্যা দেখা যায়। এমনকি ফেটে রক্তও বের হয় অনেকের। ক্ষতস্থানে ধুলাবালি ময়লা ঢুকে ইনফেকশনের সম্ভাবনা থাকে। ফলে পা ব্যথা হয়। হাঁটতে অসুবিধে হয়। এছাড়াও জুতা যদি ভালো না হয় তাহলেও পা ফাটতে পারে। এতে করে পায়ের চামড়া ক্ষতিগ্রস্ত হয় অনেকবেশি।

হাতে পায়ে আমরা নিয়ম করে তেল, ময়েশ্চারাইজার লাগালেও পায়ের পাতার যত্ন নিতে ভুলে যাই। তবে রোগ ব্যধি এড়াতে অবশ্যই পায়ের পাতার যত্ন নিতে হবে। পা ফাটা দূর করতে স্ক্রাব করতে পারেন। জেনে নিন পা ফাটা দূর করার কিছু সহজ উপায়:-

১. প্রথমে গরম পানিতে পা ভেজান। এবার একটু সাবান লাগিয়ে ঝামা পাথরে পা ভালো করে ঘষে নিন। এতে মরা কোষ, ময়লা সব উঠে আসবে। সেই সঙ্গে গোড়ালিও থাকবে পরিষ্কার।

২. আপনার আগে থেকে এই সমস্যা থাকলে শক্ত জুতা পরবেন না। নরম নরম শোলের জুতা পরুন। অবশ্যই ঢাকা জুতা পরবেন। হাওয়াই চটি পরবেন না। সেই সঙ্গে পায়ে মোজা রাখুন। মোজা পরার আগে পায়ে ক্রিম লাগাতে ভুলবেন না।

৩. নিয়মিত পেডিকিউর করুন। একটি বালতিতে গরম পানির সঙ্গে লেবুর রস আর এক চিমটি খাবার সোডা মিশিয়ে নিন। এবার এতে আপনার পা ডুবিয়ে রাখুন ১৫ মিনিট। খেয়াল রাখুন পানি যেন খুব বেশি গরম না হয়। এরপর ঝামা পাথর বা ব্রাশ দিয়ে পা পরিষ্কার করে ফেলুন। ভালোভাবে পা মুছে ময়েশ্চারাইজার লাগিয়ে নিন।

৪. কলা-মধুর মিশ্রণ দিয়ে স্ক্রাব করতে পারেন। গরম পানিতে পা ডুবিয়ে সাবান দিয়ে ঘষে পরিষ্কার করে নিন। এবার পাকা কলা আর মধু দিয়ে পেস্ট বানিয়ে নিন। এবার ওই পেস্ট পায়ে লাগিয়ে রাখুন ১৫ মিনিট। শুকিয়ে এলে গরম পানি দিয়েই ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে দুদিন করলেই খুব ভালো ফল পাবেন।

এনএইচ/পাবলিক ভয়েস

মন্তব্য করুন