নারীদের মুক্তি কোরআনে বর্ণিত আইনে: ইসলামী আন্দোলন

প্রকাশিত: ৭:৩৭ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ৭, ২০২০

নারী ধর্ষণ, হত্যা, নির্যাতন যে কোনো সময়ের চেয়ে আশঙ্কাজনকহারে বৃদ্ধি পেয়েছে। মা-বোনদের ইজ্জতের নিরাপত্তা নেই। ধর্ষণের শাস্তি মৃত্যুদণ্ড বহাল রেখে আইন পাস করার পরও ধর্ষণ বন্ধ হচ্ছে না।

ঢাকা মহানগর দক্ষিণের দোয়া মাহফিলে একথা বলেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের মহাসচিব প্রিন্সিপাল মাওলানা ইউনুছ আহমাদ।

তিনি বলেন, ইসলাম নারীদের সমান অধিকার নয়, বরং অগ্রাধিকার দিয়েছে। এখন নারীদের মুক্তি নিশ্চিত করতে হলে কোরআনে বর্ণিত অধিকার প্রতিষ্ঠায় সরকারকে কাজ করতে হবে।

শনিবার বিকেলে পুরানা পল্টনে আইএবি মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সাবেক কৃষি ও শ্রম বিষয়ক সম্পাদক মরহুম আলহাজ হাবিবুর রহমান রূহের মাগফিরাত কামনায় অনুষ্ঠিত দোয়া মাহফিল প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

ইউনুছ আহমাদ বলেন, সিলেট এমসি কলেজের হোস্টেলে স্বামীকে বেঁধে স্ত্রীকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ ঘটনা চাপা পড়ে যাচ্ছে। ছাত্রলীগ প্রমাণ করলো তাদের হাতে নারী জাতিও আজ নিরাপদ নয়। তিনি বলেন, একদিকে নারী ধর্ষণ আশঙ্কাজনকহারে বৃদ্ধি অপরদিকে দুর্নীতির রেকর্ড দেশবাসীকে চরম শঙ্কিত করে তুলেছে।

ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সভাপতি আলহাজ মাওলানা ইমতিয়াজ আলমের সভাপতিত্বে এবং সেক্রেটারি মাওলানা এবিএম জাকারিয়ার পরিচালনায় অনুষ্ঠিত দোয়া মাহফিলে বক্তব্য রাখেন রাখেন আলহাজ্ব আলতাফ হোসেন, আলহাজ আনোয়ার হোসেন, আলহাজ্ব আব্দুল আইয়াল মজুমদার, ডা. শহিদুল ইসলাম, নুরুজ্জামান সরকার, মাওলান আবদুর রাজ্জাক, মাওলানা নজরুল ইসলাম, অধ্যাপক নাসির উদ্দিন খান,

ইসলামি শ্রমিক আন্দোলন ঢাকা মহানগর দক্ষিণ সভাপতি আলহাজ্ব জাহাঙ্গীর আলম ও সিনিয়র সহ সভাপতি মুফতী সিদ্দিকুর রহমানসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ। পরে আলহাজ্ব হাবিবুর রহমান খানের আত্মার মাগফিরাত কামনা করে বিশেষ দোয়া ও মুনাজাত করা হয়।

আই.এ/

মন্তব্য করুন