এরদোগানের পর ম্যাক্রোঁনের কঠোর সমালোচনা করল ইমরান খান

প্রকাশিত: ১১:০৪ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২৫, ২০২০

ইসলাম বিদ্বেষ ছড়িয়ে দেয়ার অভিযোগে ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমমানুয়েল ম্যাক্রোঁনের কঠোর সমালোচনা করেছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। তার বিরুদ্ধে বিশ্বজুড়ে লাখ লাখ মুসলমানের ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত হানার অভিযোগ এনেছেন তিনি।

এক টুইট বার্তায় পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী বলেন, মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) এর অবমাননা ও তার ব্যঙ্গাত্মক কার্টুন প্রদর্শনে উৎসাহ দেয়ার মধ্য দিয়ে ইমমানুয়েল ম্যাক্রোঁন ইচ্ছা করেই বিশ্বজুড়ে লাখ লাখ মুসলমানের ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত করেছেন। তিনি পরিষ্কারভাবে কিছু না জেনেই এটা করেছেন।

যারা সহিংসতা ছড়ায় সেই সব মুসলিম, শ্বেতাঙ্গ শ্রেষ্ঠত্ববাদী বা নাৎসি আদর্শবাদীদের পরিবর্তে তিনি ইসলাম ধর্মকে আক্রমণ করে ইসলামফোবিয়া ছড়ানোয় উৎসাহ দিচ্ছেন উল্লেখ করে ইমরান খান বলেন, এটা দুর্ভাগ্যজনক। ম্যাক্রোঁন ইচ্ছা করেই মুসলিমদের উসকে দেয়ার পথ বেছে নিয়েছেন।

এর আগে শনিবার এক ভাষণে ফরাসি প্রেসিডেন্টকে উদ্দেশ করে তুর্কি প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যেপ এরদোয়ান বলেন, আমরা এমন রাষ্ট্রপ্রধানের বিষয়ে কী বলতে পারি, যিনি নিজ দেশের ভিন্ন মতাদর্শের কয়েক মিলিয়ন মানুষের সঙ্গে এ জাতীয় আচরণ করেন। সবার আগে তার (ম্যাক্রঁনকে) মানসিক পরীক্ষা করা দরকার।

সম্প্রতি ফ্রান্সে হযরত মুহাম্মদ (সা.) কে ব্যঙ্গ করে তৈরি কার্টুনকে কেন্দ্র করে ব্যাপক বিতর্কের সৃষ্টি হয়েছে। সেই পরিপ্রেক্ষিতে এক শিক্ষককে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা। এরপর থেকেই সেখানে আন্দোলনে রাস্তায় নেমে এসেছেন দেশটির সাধারণ জনতা। এরই মধ্যে ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমমানুয়েল ম্যাক্রোঁন সরাসরি ব্যঙ্গাত্মক কার্টুন প্রকাশের পক্ষে অবস্থান নেন।

তিনি জানান, ব্যঙ্গাত্মক কার্টুন প্রকাশ থেকে ফ্রান্স সরে আসবে না এবং এটা অব্যাহত রাখা হবে। এমনকি এ ঘোষণার পর দেশটির সরকারি ভবনগুলোতে সরকারিভাবে বিতর্কিত ওই কার্টুন প্রদর্শন করা হচ্ছে। যা পুরো বিশ্ব মুসলিম উম্মাহর ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত হেনেছে বলে অভিযোগ আলেমদের।

আই.এ/

মন্তব্য করুন