সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে যুবক নিহত, ভারতের অভ্যন্তরে পড়ে আছে লাশ

প্রকাশিত: ১২:৩৯ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১৮, ২০২০
ফাইল ছবি

চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদার ঠাকুরপুর সীমান্তে ওমেদুল ইসলাম (২৬) নামে এক বাংলাদেশি নাগরিককে গুলি করে হত্যার অভিযোগ উঠেছে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর (বিএসএফ) বিরুদ্ধে।

রোববার (১৮ অক্টোবর) ভোরে সীমান্তের ধারে গরু আনতে গেলে বিএসএফ সদস্যদের গুলিতে তিনি নিহত হন। নিহত ওই বাংলাদেশি ওমেদুল ইসলাম ঠাকুরপুর গ্রামের শহিদুল ইসলামের ছেলে।

নিহতের পরিবার ও স্থানীয়রা জানায়, ভোরে ওমেদুলসহ ৪-৫ জন বাংলাদেশি গরু ব্যবসায়ী সীমান্তে যায় গরু আনতে। ভোর ৪টার দিকে তারা সীমান্তের জিরো পয়েন্টের কাছাকাছি গেলে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফের একটি টহল দল তাদের ধাওয়া করে। এ সময় অন্য সহযোগীরা পালিয়ে আসলেও বিএসএফের গুলিতে গুলিবিদ্ধ হয়ে নিহত হন ওমেদুল ইসলাম। এরপর তার মরদেহ ৮৯ নম্বর পিলারের ভারতের অভ্যন্তরে ফেলে রাখে।

গরু আনতে যাওয়ার বিএসএফ- এর দাবি নাকচ করে চুয়াডাঙ্গা-৬ বিজিবির পরিচালক মোহাম্মদ খালেকুজ্জামান জানান , গরু আনতে যাওয়ার কথা সঠিক নয়। চুয়াডাঙ্গার কোনো সীমান্তপথে গরু আসছে না। এ ঘটনার কড়া প্রতিবাদ ও নিহত বাংলাদেশি যুবকের মরদেহ ফেরত চেয়ে বিএসএফকে চিঠি পাঠানোর প্রস্তুতি চলছে।

ওয়াইপি/পাবলিক ভয়েস

মন্তব্য করুন