যারা ধর্ষক তারাই টাকা পাচারকারী, এরা সবাই আওয়ামী লীগ: রিজভী

প্রকাশিত: ৩:৩৩ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৭, ২০২০

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, যারা নারীর সম্ভ্রমহানি করে, যারা ধর্ষক তারাই টাকা পাচারকারী। এরা সবাই আওয়ামী লীগ, ছাত্রলীগ ও যুবলীগের নেতাকর্মী। ওরা (ছাত্রলীগ) মনে করে, যার বাড়িতে সুন্দরী মেয়ে আছে সেটা ছাত্রলীগের সম্পত্তি, যখন ইচ্ছা তখন বের করে নেবে।

রবিবার (২৭ সেপ্টেম্বর) নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে ছাত্রদলের এক মানববন্ধনে তিনি এ কথা বলেন। সিলেটে স্বামীকে আটকে গৃহবধুকে গণধর্ষণ এবং খাগড়াছড়িতে পাহাড়ী নারীকে ধর্ষণের প্রতিবাদে এ মানববন্ধনের আয়োজন করা হয়।

ছাত্রলীগের অতীত ইতিহাস উল্লেখ করে রিজভী বলেন, ১৯৭৩ সালে শহীদ মিনারে প্রথম ছাত্রীকে লাঞ্ছিত করেছে এই ছাত্রলীগ। এর পরে জাহাঙ্গীর নগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রলীগ নেতার ইতিহাস সাবই জানে। এগুলো তথ্যমন্ত্রীর মত মনগড়া কথা নয় এগুলো ইতিহাস। ওরা (ছাত্রলীগ) মনে করে, যার বাড়িতে সুন্দরী মেয়ে আছে সেটা ছাত্রলীগের সম্পত্তি, যখন ইচ্ছা তখন বের করে নিবে।

বিএনপি ক্ষমতায় আসার জন্য অলিগলিতে পথ খুঁজছে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের এমন বক্তব্যের কড়া সমালোচনা করে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব বলেন, ওবায়দুল কাদের সাহেব- অলি গলিতে ঘুরে বেড়ায় যারা নারীর সম্ভ্রমহানি করে। যারা ধর্ষক। যারা টাকা পাচারকারী। আর এরা সবাই হচ্ছে আওয়ামী লীগ, ছাত্রলীগ ও যুবলীগের নেতাকর্মী। কাদের সাহেব অলিগলি আপনারা চেনেন। আমরা চিনি রাজপথ।

আপনাদের মত রাতের অন্ধকারে তরুণীদেরকে সম্ভ্রমহানি করা টাকা পাচার করা এ ধরনের কাজের সাথে কখনোই বিএনপি ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা জড়িত ছিল না। রিজভী বলেন, সরকার তার অনাচারগুলো ঢাকতে ও তাদের হালুয়া-রুটির সামান্য ভাগ পেতে কিছু সাংস্কৃতিক পরজীবীরা একটি নাটক করেছে- স্বাধীনতার ঘোষক এবং গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের নেত্রী দেশনেত্রী খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে।

বিকৃতি রুচিসম্পন্ন একটি নাটক গতকাল আরটিভিতে প্রচারিত হয়েছে। আমরা এটার প্রতিবাদ জানিয়েছি, আমরা বলেছি ইতিহাসকে বিকৃত করে সাংস্কৃতিক ব্যক্তির নামে কয়েকজন পরজীবীরা এই জঘন্য নোংরা কাজ করছে। শেখ হাসিনা আপনাকে বারবার বলেছি আপনার পদলেহনকারী ওইসব সাংস্কৃতিক ব্যক্তিদের ইতিহাস আর হাইকোর্টকে ধমক দিয়ে ইতিহাস সৃষ্টি এটা টিকবে না।

আজকে আমি ছাত্র ভাইদেরকে সাক্ষী রেখে বলছি যারা এই সমস্ত জঘন্য বিকৃত ইতিহাস সৃষ্টি করছে তাদেরকে আমরা ব্ল্যাকলিস্ট করছি তাদের জন্য কালো তালিকা করছি।

আই.এ/

মন্তব্য করুন