ভোলায় পৌনে তিন লাখ শিশুকে খাওয়ানো হবে ভিটামিন এ প্লাস ক্যাপসুল

প্রকাশিত: ৬:৫৬ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২২, ২০২০

ইকরামুল আলম, ভোলা প্রতিনিধি: আগামী ৪ অক্টোবর থেকে ১৫ অক্টোবর পর্যন্ত দুই সপ্তাহ ব্যাপী সারা দেশের ন্যায় ভোলাতেও জাতীয় ভিটামিন এ প্লাস ক্যাম্পেইন অনুষ্টিত হবে। এ সময় ভোলার দুই লাখ ৭২ হাজার ৩০৬ জন শিশুকে একটি করে ভিটামিন-এ ক্যাপসুল খাওয়ানো হবে। মঙ্গলবার দুপুর ১২ টার দিকে ভোলার সিভিল সার্জন এর সভাকক্ষে সাংবাদিকদের ওরিয়েন্টেশন কর্মশালায় সিভিল সার্জন ডা. মো. ওয়াজেদ আলী এ তথ্য জানান। এর মধ্যে ৬ মাস থেকে ১১ মাস বয়সী ৩১ হাজার ৬৭৭ জন শিশুকে একলক্ষ ইউনিটের একটি নীল রংয়ের ভিটামিন এ ক্যাপসুল ও ১২ থেকে ৫৯ মাস বয়সী দুই লাখ ৪০ হাজার ৬২৯ জন শিশুকে দুই লক্ষ ইউনিটের লাল রংয়ের ভিটামিন এ ক্যাপসুল খাওয়ানাে হবে।

তিনি আরও জানান, ভোলা জেলার ১০ টি স্থায়ী কেন্দ্রসহ মোট এক হাজার ৬৯০ টি কেন্দ্রে দুই সপ্তাহ ব্যাপী প্রতিদিন সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত কেন্দ্রগুলোতে ভিটামিন এ প্লাস ক্যাম্পেইন অনুষ্ঠিত হবে। প্রতিটি কেন্দ্রে দুই জন করে মোট চার হাজার ১১২ জন সেচ্ছাসেবক/স্বাস্থ্য কর্মী/পরিবার পরিকল্পনা কর্মী/ সিএইসসিপি কর্মীর মাধ্যমে ভিটামিন এ প্লাস ক্যাম্পেইন পরিচালিত হবে।

সিভিল সার্জন ডা. মো. ওয়াজেদ আলী জানান, ভিটামিন এ প্লাস ক্যাম্পেইন পুষ্টি সেক্টরের একটি গুরুত্বপূর্ন কর্মসূচী।শিশুদের অপুষ্টি নিরাময়, অন্ধত্ব প্রতিরােধ , শিশুর স্বাভাবিক শারীরিক ও মানসিক বিকাশ এবং রােগ প্রতিরােধ ক্ষমতা বৃদ্ধির জন্য ভিটামিন এ একটি অত্যাবশ্যকীয় অনুপুটি। সুতরাং ভিটামিন এ প্লাস ক্যাম্পেইন একটি গুরুত্বপূর্ণ জাতীয় কর্মসূচী। করোনাকালীন সময়ের কারনে এবছর যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি মেনে এ ক্যাম্পেইন অনুষ্ঠিত হবে। এবং কোন মা যদি বাচ্চাকে নিজ হাতে ভিটামিন এ ক্যাপসুল খাওয়াতে চায় সে ব্যবস্থাও থাকবে কেন্দ্রগুলোতে।

এ সময় তিনি আগামী ৪ অক্টোবর থেকে দুই সপ্তাহ ব্যাপী ভিটামিন এ প্লাস ক্যাম্পেইন বাস্তবায়নে সকলের সহযোগীতা কামনা করেন।

অনুষ্ঠানে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রতিনিধি ডা. হাসনাইন আহমেদ, ভোলা প্রেসক্লাব সাধারন সম্পাদক অমিতাব রায় অপু, সিভিল সার্জন কার্যালয়ের ডা. ফারজানা খান জুটি, স্বাস্থ্য শিক্ষা কর্মকর্তা মো. সোলাইমানসহ ভোলায় কর্মরত বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

এনএইচ/

মন্তব্য করুন