আল্লামা শফীর ইন্তেকালে আল্লামা মাহমুদুল হাসানের গভীর শোক

প্রকাশিত: ৯:৪২ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১৮, ২০২০

হেফাজত ইসলাম বাংলাদেশের আমির, দারুল উলূম মুঈনুল ইসলাম হাটহাজারী মাদরাসার মহাপরিচালক শাইখুল ইসলাম আল্লামা শাহ আহমদ শফীর ইন্তেকালে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন রাজধানীর জামিয়া ইসলামিয়া দারুল উলুম মাদানিয়া যাত্রাবাড়ী মাদরাসার মুহতামিম ও মজলিসে দাওয়াতুল হক বাংলাদেশের আমির মুহিউস সুন্নাহ আল্লামা মাহমুদুল হাসান।

শোক বার্তায় তিনি বলেন, আল্লামা শাহ আহমদ শফী একাধারে কওমি মাদরাসার সর্বোচ্চ অথরিটি আল-হাইয়াতুল উলইয়া, বাংলাদেশ কওমি মাদরাসা শিক্ষাবোর্ড বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়া বাংলাদেশ, ঐতিহ্যবাহী ইসলামী বিদ্যাপীঠ চট্টগ্রামের দারুল উলুম মুঈনুল ইসলাম হাটহাজারী মাদরাসার মহাপরিচালক হিসেবে দীর্ঘকাল ধরে দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন। তিনি ছিলেন দীন-ধর্ম, ওলামায়ে কেরাম ও দেশের মানুষের জন্য আল্লাহর নেয়ামতস্বরূপ। আজ তাকে এভাবে রফিকে আলার দরবারে চলে যেতে হবে কল্পনাও করিনি।

বিবৃতিতে মহিউস সুন্নাহ বলেন, শাইখুল ইসলাম আল্লামা শাহ আহমদ শফীর নেতৃত্বে নাস্তিকদের বিরুদ্ধে হেফাজতের গণঅভ্যুত্থান ছিল আন্তর্জাতিকভাবে চর্চিত৷ তিনি দেশের হাজারো আলেম ওলামার মুরুব্বি ছিলেন। পৃথিবীজুড়ে হাজার হাজার আলেম তার ছাত্র কিংবা তার ছাত্রের ছাত্র। তার এই শূন্যতা পূরণ হবার নয়।

তিনি বলেন, আল্লামা শাহ আহমদ শফী সাহেব হুজুরের জ্ঞানের আলোয় অসংখ্য তলাবা আলোকিত হয়েছেন, তৈরি করেছেন আধ্যত্মিকতার রাহবার শাহ হুসাইন আহমদ মাদানি রহ. এর ফুয়ুজ ও বরকতের ধারা! তিনি ছিলেন দলমত নির্বিশেষে ইসলামপ্রিয় জনতার অভিভাবক ও মুরব্বি। তিনি দীর্ঘদিন যাবৎ অসুস্থ ছিলেন। আজ এই মহান নন্দিত পুরোধার ইন্তেকালে আমি গভীরভাবে শোকপ্রকাশ করছি। আমি তার মাগফিরাত কামনা করছি এবং শোকসন্তপ্ত পরিবার, আত্মীয়,স্বজন, তাঁর ছাত্র এবং শুভানুধ্যায়ীদের প্রতি গভীর সমাবেদনা জানাচ্ছি।

জানা গেছে, আল্লামা শাহ আহমদ শফীর ইন্তেকালের খবর পেয়ে আজ যাত্রাবাড়ি বড় মাদরাসায় মরহুমের রূহের মাগফিরাত কামনায় মাদরাসার সকল শিক্ষক ছাত্রদের নিয়ে কোরআনের তেলাওয়াত ও বিশেষ দোয়ার আয়োজন করেন আল্লামা মাহমুদুল হাসান।

আই.এ/

মন্তব্য করুন