বিএনপির প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে মির্জা ফখরুল : ‘আমরা কেবল গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনতে চাই’

প্রকাশিত: ২:৫৪ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১, ২০২০

আজ ১ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপির ৪২ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী। ৪৩ তম বছরে পা দিয়েছে বাংলাদেশের অন্যতম প্রধান এই রাজনৈতিক দলটি।

১৯৭৮ সালের এই দিনে সামরিক শাসক জিয়াউর রহমানের হাত ধরে দলটির জন্ম। দেশের সংসদীয় ইতিহাসে তিন বার কর্তৃত্ব করলেও টানা তৃতীয় মেয়াদে ক্ষমতার বাইরে দলটি। এরমধ্যে ২০১৮ সালের ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ভরাডুবির পর হতভম্ব অবস্থা থেকে উঠে দাঁড়ানোর চেষ্টা করছে বিএনপি।

দলের ৪২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে এবার একদিনের কর্মসূচি দিয়েছে দলটি। রাজধানী ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন জায়গায় পোস্টারিং করা হয়েছে। নয়া পল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে শোভা পাচ্ছে বিশাল ব্যানারও।

দলের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে সোমবার (৩১ আগস্ট) বাণী দিয়েছেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান ও মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। বাণীতে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘আজ থেকে ৪২ বছর আগে দেশের এক চরম ক্রান্তিকালে মহান স্বাধীনতার ঘোষক, বহুদলীয় গণতন্ত্রের প্রবক্তা, বিশ্ববরেণ্য রাষ্ট্রপতি শহীদ জিয়াউর রহমান বীর উত্তম এদেশের মানুষকে একদলীয় দুঃশাসনের অন্ধকার যুগ থেকে রক্ষার জন্য বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল-বিএনপি প্রতিষ্ঠা করেন। আমি তার প্রতি আন্তরিক শ্রদ্ধা জানাচ্ছি এবং তার বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করছি।’

দলের চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে বিএনপির মহাসচিব বলেন, ‘বারবার দেশ ও গণতন্ত্রের সংকটকালে অসীম সাহসিকতার সঙ্গে জুলুম-নির্যাতনকে সহ্য করেও দুর্বার আন্দোলনে যিনি নেতৃত্ব দিয়েছেন, আমি সেই অদম্য সাহসের প্রতীক ও  এই দিনে দলের প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকে এখনও পর্যন্ত যে সব নেতা মৃত্যুবরণ করেছেন তাদের প্রতিও জানাই গভীর শ্রদ্ধা।’

এছাড়াও প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর এই দিন দুপুরে রাজধানীর শেরেবাংলা নগরে বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদনের আয়োজন করা হয়। বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাস উপেক্ষা করে হাজারো নেতাকর্মী প্রিয় নেতার সমাধিতে শ্রদ্ধা জানাতে আসে।

বেলা ১১টায় জিয়াউর রহমানের সমাধিতে আসেন দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ দলটির জ্যেষ্ঠ নেতৃবৃন্দ। এর আগে সর্বস্তরের কয়েক হাজার মানুষ শ্রদ্ধা জানাতে সেখানে জড়ো হন। তাঁরা দলের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের কবরে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান। এরপর সমাধি প্রাঙ্গণে দোয়া ও মোনাজাত করে সবাই। তাঁরা জিয়াউর রহমানের রুহের মাগফিরাত, দেশ ও জাতির শান্তি, দলীয় চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার সুস্বাস্থ্য চেয়ে দোয়া করেন।

সমাধিস্থল থেকে বের হয়ে সাংবাদিকদের সামনে বিএনপি মহাসচিব বলেন –  দেশে গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনাই এখন বিএনপির জন্য বড় চ্যালেঞ্জ।

মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, ‘এই প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে আমাদের এখন একটাই লক্ষ্য, গণতন্ত্র উদ্ধার করা এবং দেশে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করা। আর আমরা বিশ্বাস করি, সরকারের শুভবুদ্ধির উদয় হবে এবং মিথ্যা হয়রানির মামলা থেকে বিএনপি চেয়ারপারসন দেশনেত্রী খালেদা জিয়াকে মুক্তি দেবে।’‘বর্তমান যে রাষ্ট্র ব্যবস্থা, এই রাষ্ট্র ব্যবস্থা হচ্ছে একটা একনায়কতান্ত্রিক, স্বৈরাচারী, ফ্যাসিবাদী রাষ্ট্র ব্যবস্থা। এখানে যেহেতু জনপ্রিয় রাজনৈতিক দল বা গণতান্ত্রিক অধিকার নেই, সেই কারণেই এই জনপ্রিয়তাকে কাজে লাগিয়ে নির্বাচনের মাধ্যমে ক্ষমতায় যাওয়ার সুযোগটা অনেক সীমিত হয়ে গেছে। সে জন্যই জনগণকে এখন আমাদের উদ্বুদ্ধ করে কাজের মধ্যে যেতে হবে’, যোগ করেন বিএনপির মহাসচিব।

বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসের মধ্যে বিএনপি নেতৃবৃন্দ আজ তাদের দলের ৪২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী সাদামাটাভাবে পালন করছে। প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে আজ সকালে দলের কেন্দ্রীয় ও জেলা কার্যালয়ে দলীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়। এরপর শেরেবাংলা নগরে দলের প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করেছেন দলের নেতাকর্মীরা। রয়েছে ভার্চুয়াল আলোচনা সভা। প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে সারা দেশে দলের নেতাকর্মী, সমর্থক ও শুভানুধ্যায়ীদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান ও মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

মন্তব্য করুন