আজ থেকে খুলছে হেফজখানা : খুলতে পারে কওমী বিভাগও

প্রকাশিত: ১০:৫৮ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ১২, ২০২০
আজ থেকে খুলছে হেফজখানা : খুলতে পারে কওমী বিভাগও

গত ৮ জুলাই সরকারিভাবে প্রকাশিত একটি ঘোষণাপত্রের মাধ্যমে করোনা ভাইরাসের এই সময়ে স্বাস্থ্যবিধী মেনে দেশের কওমী মাদরাসাসমূহের হেফজ বিভাগগুলো খুলে দেওয়ার ঘোষণা দেওয়া হয়েছিলো।

স্বাস্থ্যবিধী মেনে খুলছে দেশের কওমী মাদরাসার হিফজ বিভাগগুলো

পরবর্তিতে ৯ জুলাই পূনরায় প্রজ্ঞাপন জারির মাধ্যমে আজ (১২ জুলাই) থেকে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর ঘোষিত স্বাস্থ্যবিধি মেনে দেশের কওমি মাদ্রাসা সমূহের হিফজ বিভাগগুলো খুলে দেওয়ার অনুমতি দেয়া হয়েছে। যার পরিপ্রেক্ষিতে আজ থেকে দেশের হিফজ বিভাগগুলোতে পুনরায় পবিত্র কুরআনের তেলাওয়াত হবে এবং দীর্ঘ প্রায় ১০০ দিন বন্ধ থাকার পরে আজ থেকে খুলবে হিফজ বিভাগগুলো।

১২ জুলাই থেকে হিফজ বিভাগ খুলে দেওয়ার অনুমতি দিয়েছে সরকার

এরইমধ্যে জানা গেছে কোরবানী ঈদের আগে একইভাবে দেশের কওমি মাদ্রাসাগুলোও সীমিত আকারে খুলে দেওয়ার ঘোষণা আসতে পারে। এমনকি সেটার রূপরেখা হতে পারে করোনাভাইরাস লকডাউনের কারণে স্থগিত হওয়া বেফাক বা হাইয়াতুল উলয়ার পরীক্ষা গ্রহণের মাধ্যমে। এ বিষয়ে কওমী মাদরাসার দায়িত্বশীল পর্যায়ের বেশ কয়েকজন ব্যাক্তিরা সরকারের উধ্বর্তন ব্যাক্তিদের সাথে যোগাযোগ রক্ষা করে চলছেন এবং কুরবানীর আগে সীমিত পরিসরে কওমী মাদরাসা খুলে দেওয়ার ঘোষণা আসতে পারে বলেও কেউ কেউ ইঙ্গিত দিয়েছেন।

কওমী মাদরাসা খুলতে আলেমদের সাহসী হতে হবে: নদভী

তেরো হাজার লোক বেফাকে সদস্য, একমাত্র আমিই অযোগ্য : নদভী

এ বিষয়ে কওমী মাদরাসার স্বতন্ত্র একটি শিক্ষাবোর্ড জাতীয় দ্বীনি মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের সহ-সভাপতি ও ধর্ম মন্ত্রণালয়ের সম্পর্কিত ইসলামিক ফাউন্ডেশনের উপ-পরিচালক ড. মাওলানা মুশতাক আহমেদ ফেসবুকে তাঁর আইডিতে লিখেন –

আলহামদুলিল্লাহ। অদ্য ১১/০৭/২০ বাদ ইশা মাননীয় স্বরাস্ট্রমন্ত্রী মহোদয়ের সাথে কথা হল। তিনি খুব শীঘ্রই কাওমী মাদ্রাসার কিতাবখানা খোলা, কওমী মাদ্রাসার কালেকশন বিষয়ক অতি গুরুত্বপূর্ণ সময় কুরবানী উপলক্ষে বড় ছাত্রদের মাদ্রাসায় উপস্থিতির আবশ্যকতা চিন্তা করে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর সাথে কথা বলে আরেকটি প্রজ্ঞাপন জারী করানোর মর্মে আমাদের আশ্বাস দিয়েছেন। আমরা আশাবাদী যে, খুব দ্রুত সময়ের মধ্যে আরেকটি প্রজ্ঞাপন পাবো। আমাদের দীর্ঘ অপেক্ষার ক্লান্তি সমাপ্ত হবে ইনশাআল্লাহ। সকলের কাছে দুআ চাই। ধন্যবাদ।

অপরদিকে এ বিষয়ে বেফাক এবং হাইআতুল উলিয়ার সাথে সংশ্লিষ্ট একটি নির্ভরযোগ্য সূত্রের সাথে গত দুদিন আগে (১০ জুলাই) পাবলিক ভয়েসের সম্পাদক ও নির্বাহী সম্পাদক-এর সাথে একান্ত আলাপ হলে তিনি কুরবানীর আগে মাদরাসা খোলার বিষয়ে ইঙ্গিত দিয়েছিলেন। এবং এ বিষয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী এবং কওমী মাদরাসার উধ্বর্তন ব্যাক্তিদের প্রচেষ্টার বিষয়েও জানিয়েছিলেন। তবে সরাসরি ঘোষণার অপেক্ষায় পাবলিক ভয়েসের পক্ষ থেকে এ বিষয়ে কোনো সংবাদ প্রকাশ করা হয়নি।

পরবর্তীতে অনুসন্ধানের স্বার্থে হাইয়াতুল উলয়া এবং বেফাকের কয়েকটি সূত্রের সাথে গতকাল (১১ জুলাই) যোগাযোগ করা হলে তারা বিষয়টি সেভাবে স্পষ্ট করে জানাতে পারেননি বলে এ বিষয়ে কোন ঘোষণামূলক প্রতিবেদন পাবলিক ভয়েস থেকে করা হয়নি। এমনকি এখনও বিষয়টি সম্পর্কে বেফাক ও হাইয়াতুল উলয়ার পক্ষ থেকে স্পষ্ট কিছু জানানো হয়নি। এ বিষয়ে তাদের সাথে যোগাযোগ করা হলে তারা জানিয়েছেন – আগামী সোমবার (১৩ জুলাই) মিটিংয়ে এ বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করা হবে এবং বিস্তারিত জানানো হবে।

আরও পড়ুন :

বেফাক ও হাইয়ার নামে একাধিক ফেসবুক পেজ : ছড়াচ্ছে বিভ্রান্তি

ভেরিফায়েড হলো ‘হাইয়াতুল উলয়ার’ ফেসবুক পেজ

আর/আর/

মন্তব্য করুন