প্রতিদিন ২৫ হাজার মুসলমানকে ইফতার করাবেন বলিউড অভিনেতা

প্রকাশিত: ১০:০৭ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ২৪, ২০২০

পুরো রমজান মাস জুড়ে প্রতিদিন ২৫ হাজার মুসলিম অভিবাসীকে ইফতার করানোর দায়িত্ব নিয়েছেন বলিউড অভিনেতা ও মুম্বাইয়ের হোটেল ব্যবসায়ী সোনু সুদ। একই সাথে রমজানের প্রথম দিন থেকেই মুম্বাইয়ে কর্মরত মুসলমানদের রোজা রাখার জন্যও খাদ্য সহায়তা দেবেন তিনি।

ইন্ডিয়া টিভির অনলাইন সংস্করণের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, পবিত্র রমজানে মুম্বাইয়ে প্রতিদিন ২৫ হাজার মুসলিম অভিবাসীকে খাওয়ানোর দায়িত্ব নিয়েছেন সোনু সুদ, যা শুরু হয়েছে বৃহস্পতিবার থেকে।

সোনু বলেন, ‘এখন বড় দুঃসময়। একে অন্যের পাশে দাঁড়ানো এ সময় খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এই কার্যক্রমের মাধ্যমে আমি সেসব মানুষকে সহায়তা করব, যাঁরা রোজা রাখছেন এবং আমরা তাঁদের কাছে খাবার পৌঁছে দেব। সারা দিন রোজা রাখার পর তাঁরা অভুক্ত থাকবেন না।’

এর আগে প্রতিদিন ৪৫ হাজার দরিদ্র মানুষের খাবারের দায়িত্ব কাঁধে তুলে নেন সোনু সুদ। তারও আগে নিজের হোটেলে স্বাস্থ্যকর্মীদের থাকার সুযোগ করে দেওয়ার কথা বলেন এই অভিনেতা।

হিন্দুস্তান টাইমসের প্রতিবেদনে জানা যায়, ভারতের মুম্বাইয়ের আন্ধেরি, যোগেশ্বরী, জুহু ও বান্দ্রার ৪৫ হাজার মানুষকে প্রতিদিন খাবার দিচ্ছেন সোনু। ভারতীয় দৈনিক মিড ডে-র বরাত দিয়ে এ তথ্য জানানো হয়। আর এ কাজে তিনি একত্র হয়েছেন ব্রিহানমুম্বাই মিউনিসিপ্যাল করপোরেশনের (বিএমসি) সঙ্গে।

“এই কঠিন সময়ে খাদ্য ও নিরাপত্তা থাকায় আমরা কেউ কেউ ভাগ্যবান, কিন্তু অনেকেই আছেন যাঁদের দিনে খাবার জোটে না। তাঁদের সাহায্যার্থে আমার বাবার নামানুসারে ‘শক্তি আনন্দধাম’ নামে খাদ্য ও রেশনের একটি প্রকল্প শুরু করেছি। আশা করি, যত মানুষকে সম্ভব, আমি সাহায্য করতে পারব,’’ বলেন সোনু।

মুম্বাইয়ে নিজের হোটেলে করোনা নিয়ে কাজ করা চিকিৎসক, নার্স ও প্যারামেডিকেল স্টাফদের থাকার ব্যবস্থা করে দেন সোনু সুদ।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে মানবসেবার এক অনন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন ভারতীয় এই অভিনেতা। করোনাভাইরাস পরিস্থিতির কারণে দেশটিতে চলমান লকডাউনে অনেক শ্রমজীবী, দুস্থ মানুষ অন্নসংস্থান নিয়ে চিন্তায় পড়েছেন। এসেছে পবিত্র মাহে রমজান। দূরদূরান্ত থেকে অনেক মানুষ মুম্বাইয়ে কাজের খোঁজে যান। এখন কাজ বন্ধ। কিন্তু সারা দিন রোজা রেখে সন্ধ্যায় ইফতার করবেন কীভাবে, সে চিন্তায় তাঁদের কপালে ভাঁজ। এবার এমন মানুষের সাহায্যে এগিয়ে এলেন সোনু।

মন্তব্য করুন