তারাবী নিয়ে সাবের চৌধুরীর এ বক্তব্য শরীয়ত বিরোধী : খেলাফত আন্দোলন

প্রকাশিত: ৯:৩৮ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ২০, ২০২০

টিভি দেখে তারাবী নামাজ আদায় করা প্রসঙ্গে আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় নেতা ও এমপি সাবের হোসেন চৌধুরীর বক্তব্য শরিয়ত বিরোধী আখ্যা দিয়ে তাঁর প্রতিবাদ করেছে বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলন।

দলের পক্ষ থেকে পাঠানো এক বিবৃতিতে বলা হয়, আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় নেতা ও এমপি সাবের হোসেন চৌধুরী কর্তৃক সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে দেয়া বক্তব্য “আসন্ন রমজানে তারাবী নামাজ মসজিদে না গিয়ে বাসায় আদায়ের ব্যবস্থা করতে মুসল্লীদের জন্য সরাসরি টেলিভিশনে তারাবিহ নামাজ সম্প্রচারের উদ্যোগ নেয়া হবে, টেলিভিশন ফলো করে বাসায় নামাজ পড়বেন” এ বক্তব্য সঠিক নয় এবং এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন তারা।

বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মুফতি সুলতান মহিউদ্দিন বলেন, সাবের হোসেন চৌধুরীর এ বক্তব্য সম্পূর্ণ শরীয়ত বিরোধী। যা ধর্ম সম্পর্কে অজ্ঞতার পরিচয় বহন করে। সাবের চৌধুরীর এ বক্তব্য ইসলাম ও মুসলমাদের গুরুত্বপূর্ণ ইবাদত নামাজকে নিয়ে চরম ধৃষ্টতা ও তামাশা করার শামিল। টেলিভিশন দেখে দেখে নামাজ পড়ার এ কান্ডজ্ঞানহীন ফতোয়া কোন মুসলমান মেনে নেবে না। এত প্রবীণ একজন রাজনীতিবিদের কাছে এ ধরনের বক্তব্য জাতি কখনও আশা করেননি। অবিলম্বে শরীয়ত বিরোধী এ বিভ্রান্তিকর বক্তব্য প্রত্যাহার করতে হবে।

মুফতি সুলতান মহিউদ্দিন আরও বলেন, সৌদি সরকারকে এত অনুসরণ করতে মন চাইলে সে দেশের চুরির শাস্তি হাত কাটার আইনের অনুসরণ করুন। ত্রানের চাল চোরসহ সকল চোর-ডাকাত ও দুর্নীতিবাজদের আইনের আওতায় এনে উপযুক্ত বিচার করুন। দেশে চুরি বন্ধ হবে, অসহায়-দুস্থ মানুষের ঘরে খাবার পৌছবে। এ অধিকার এবং ক্ষমতা আপনাদের রয়েছে, তারাবী নামাজ নিয়ে ফতোয়া দেয়ার অধিকার আপনাদের নেই।

মন্তব্য করুন