অযোদ্ধা মামলা: রায় মেনে নিয়েছে ভারতের সুন্নি ওয়াকফ বোর্ড

প্রকাশিত: ১২:৪০ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ৯, ২০১৯

ভারতের অযোধ্যায় বিতর্কিত ধর্মীয় স্থানে একটি মন্দির গড়ার জন্যই সে দেশের সুপ্রিম কোর্ট অবশেষে রায় দিয়েছে। মন্দির গড়ার জন্য সরকারকে একটি ট্রাস্ট গঠন করতেও বলা হয়েছে।

অযোধ্যাতেই অন্যত্র একটি মসজিদ গড়ার জন্যও সুন্নি ওয়াকফ বোর্ডকে পাঁচ একর জমি বরাদ্দ করার জন্য কেন্দ্রীয় সরকারকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। সর্বোচ্চ আদালতের প্রতি সম্মান দেখিয়ে রায় মেনে নিয়েছে ভারতের সুন্নি ওয়াকফ বোর্ড।

অযোধ্যার যে ২.৭৭ একর জমিকে বিরোধের মূল কেন্দ্র বলে গণ্য করা হয়, তা বরাদ্দ করা হয়েছে ‘রামলালা বিরাজমান’ বা হিন্দুদের ভগবান শ্রীরামচন্দ্রের বিগ্রহকে।

এই ট্রাস্ট তৈরির জন্য কেন্দ্রকে এগিয়ে আসার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে

* অযোধ্যায় রামমন্দির তৈরির জন্য ৩ মাসের মধ্যে ট্রাস্ট তৈরি করতে হবে

* মসজিদ বানানোর জন্য মুসলিম পক্ষকে ৫ একর বিকল্প জমি দিতে হবে

* শর্ত সাপেক্ষে এই জমি হিন্দুদের হাতে দেওয়া হোক

* মুসলিমদের জন্য বিকল্প জমির ব্যবস্থা হবে

* জমির মালিকানার পক্ষে প্রমাণ দেখাতে পারেনি সুন্নি ওয়াকফ বোর্ড

* যে কাঠামো ভেঙে বাবরি মসজিদ তৈরি হয়েছিল তা মসজিদ নয়। তবে তা যে মন্দির ছিল তাও নির্দিষ্ট ভাবে বলা যায় না।

* বাবরি মসজিদ খালি জায়গায় ওপর তৈরি হয়নি

* ধর্মবিশ্বাসের ওপর ভিত্তি করে আদালত রায় দিতে পারে না।

* রাম যে অযোধ্যায় জন্মেছিলেন হিন্দুদের এই বিশ্বাসের ওপর প্রশ্ন তোলা যায় না।

* জমির দখল নিয়ে সুন্নি ওয়াকফ বোর্ড যে দাবি করছে, তার যথাযথ প্রমাণ দিতে পারেনি।

* ১৯৯২ সালে মসজিদ যে ভাঙা হয়েছে, তা আইনবিরুদ্ধ

* অযোধ্যায় রামের জন্ম নিয়ে হিন্দুদের বিশ্বাস অনস্বীকার্য।

* ১৮৫৬-৫৭ সালের মধ্যে য নথি মিলেছে, হিন্দুদের পুজো করাতে কোনও বাধাদান দেওয়া হয়নি।

আই.এ/

মন্তব্য করুন