বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তিতে বাধ্যতামূলক করা হচ্ছে ডোপ টেস্ট!

প্রকাশিত: ৯:৩৯ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ২৩, ২০২০

উচ্চতর শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ভর্তির আগে এবং চূড়ান্ত পরীক্ষায় অবতীর্ণ হওয়া আগে মাদকাসক্ত কিনা জানার বিশেষ স্বাস্থ্য পরীক্ষা (ডোপ টেস্ট) বাধ্যতামূলক করার সুপারিশ করেছে স্বরাষ্ট্র্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় কমিটি।

সেই সুপারিশের আলোকে এরই মধ্যে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সুরক্ষা সেবা বিভাগ থেকে পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে বলে সংসদীয় কমিটিকে অবগত করেছে মন্ত্রণালয়। ফলে এখন থেকে এইচএসসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়ার পর কেউ বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হতে গেলে অবশ্যই ডোপ টেস্টে উত্তীর্ণ হতে হবে। শুধু তাই নয়, দেশের সব সরকারি-বেসরকারি চাকরিতে প্রবেশ করতে হলেও ডোপ টেস্ট বাধ্যতামূলক।

এজন্য স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগের আওতাধীন সব অধিদপ্তরকে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। সে আলোকে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের বিধি-১ শাখা থেকে ২০১৮ সালের ৫ সেপ্টেম্বর সব শ্রেণির সরকারি চাকরিতে প্রবেশের সময় যেসব ধাপ পার হতে হয়, সেগুলোর সঙ্গে ডোপ টেস্ট অন্তর্ভুক্তকরার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

সংসদীয় কমিটির বৈঠকে চলমান মাদক বিরোধী অভিযান নিয়ে আলোচনা হয়। এ অভিযানে সামাজিক আন্দোলন জোরদার, সার্বজনীন সচেতনতা বৃদ্ধি এবং সংশ্লিষ্ট সবাইকে মাদকের বিরুদ্ধে সম্মিলিতভাবে কাজ করার পরামর্শ দেওয়া হয়।

এছাড়া কারাগারে মাদকাসক্তদের পৃথকভাবে রাখারও সুপারিশ করা হয়।

ওয়াইপি/পাবলিক ভয়েস

মন্তব্য করুন