বাংলাদেশের নাগরিক ছাড়া ভারত থেকে কেউ এলে বিদায় করা হবে: মোমেন

প্রকাশিত: ৭:০০ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ১৫, ২০১৯

বাংলাদেশের নাগরিক নয়, এমন কেউ যদি ভারত থেকে আসে তাদেরকে বিদায় করে দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন। পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশের আর্থ সামাজিক উন্নয়ন দেখে ভারত থেকে ফড়িয়া ধরে বাংলাদেশে লোক আসছে। তবে বাংলাদেশের লোক ছাড়া অন্য কেউ বাংলাদেশে ঢুকলে তাদের বিদায় করে দেয়া হবে। তাছাড়া আমি ভারতীয় কর্তৃপক্ষকে বলেছি, কাউকে পুশব্যাক করবেন, এটি পাঠানোর একটি প্রক্রিয়া আছে।

বোরবার (১৫ ডিসেম্বর) পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে সাংবাদিকদের তিনি এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, বাংলাদেশে নিযুক্ত ভারতের রাষ্ট্রদূত রিভা গাঙ্গুলির সঙ্গে আমার কথা হয়েছে। তিনি বলেছেন, বাংলাদেশের ক্ষতি হবে, এমন কোনো কিছু ভারত করবে না। সাংবাদিকদের করা এক প্রশ্নের জবাবে মোমেন বলেন, ভারতের উত্তর-পূর্ব রাজ্যে বাংলাদেশের ভ্রমণে কোনো নিষেধাজ্ঞা নেই।

ভারত সফর বাতিলের বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু সরকারের একটি অলিখিত নিয়ম আছে মন্ত্রী – সচিব একই সময়ে বিদেশে যাওয়া যায় না। আমার ভারত সফরে যাওয়ার সময় প্রতিমন্ত্রী -সচিব বিদেশে অবস্থান করছেন। সে কারণে সফর বাতিল করা হয়েছে বলে জানান তিনি।

মিয়ানমার প্রসঙ্গে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, মিয়ানমার আইসিজে যাওয়ার পর একটু নরম হয়েছে বলে মনে হচ্ছে। আমাদের সঙ্গে যে চুক্তি করেছে তার আলোকে তারা রোহিঙ্গাদের নিয়ে যাবে এটি আমার প্রত্যাশা। তারা মিয়ানমারে যাওয়ায় জন্য আমাকে দাওয়াত দিয়েছে। আমি বলেছি আমি সেখানে যাব যখন সব রোহিঙ্গা মিয়ানমারে পৌঁছে যাবে। আমি বলেছি তাদের প্রতিনিধি বরং বাংলাদেশে আসুক এবং রোহিঙ্গাদের প্রত্যাশার কথা শুনে যাক। মিয়ানমারের বিরুদ্ধে আইসিজের মামলাকে আমি খুবই ইতিবাচক হিসেবে দেখি।

গোটা বিশ্বে এটি জানতে পেরেছে-ওখানে গণহত্যা হয়েছে। পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, সুচি কিন্তু সেখানেও এ বিষয়টি অস্বীকার করেনি। তিনি বলেননি ওখানে হত্যাযজ্ঞ হয়নি। তিনি শুধু দোষটা অন্যজনকে দিতে চেয়েছেন। কিন্তু হত্যা যে হয়েছে তা তিনি অস্বীকার করেননি।

আই.এ/

মন্তব্য করুন