‘হাফেজ্জী হুজুর রহ. এর তাওবার ডাক ইসলামী রাজনীতির পথ সুগম করেছে’

প্রকাশিত: ৮:১২ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ২, ২০১৯

চলতি নভেম্বর মাসকে দাওয়াতি মাস হিসেবে ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ খেলাফত ছাত্র আন্দোলন। সদস্য সংগ্রহ ও নবায়ন কার্যক্রমের মাধ্যমে দাওয়াতি মাস ঘোষণা করেন খেলাফত আন্দোলনের আমীরে শরীয়ত মাওলানা আতাউল্লাহ ইবনে হাফেজ্জী।

এ উপলক্ষ্যে জামিয়া নূরিয়া ইসলামীয়া কামরাঙ্গীচর মাদরাসায় এক অনুষ্ঠানে সদস্য সংগ্রহ ও নবায়ন কার্যক্রমের সূচনা করা হয়।

এসময় আমীরে শরীয়ত মাওলানা আতাউল্লা হাফেজ্জী- খেলাফত ছাত্র আন্দোলনের দাওয়াত সবত্র পৌঁছে দেয়ার আহ্বান জানিয়ে বলেন, ছাত্র আন্দোলনের প্রত্যেক সদস্যকে সমাজের আদর্শ হতে হবে। জনগণের বিপদে আপদে সবসময় পাশে থাকতে হবে। ছাত্রদের প্রধান কাজ ইলম অর্জন করে জাতিকে নেতৃত্ব দেয়ার জন্য যোগ্যতা সম্পন্ন ব্যক্তি হিসেবে নিজেকে গড়ে তোলা।

এসময় খেলাফত আন্দোলনের কেন্দ্রীয় নায়েবে আমীর ও ঢাকা মহানগরীর আমীর মাওলানা মুজিবুর রহমান হামিদী বলেন, খেলাফত আন্দোলন প্রচলিত কোনো রাজনৈতিক দল নয়। এটি একটি আধ্যাত্মিক সংগঠন। হাফেজ্জী হুজুর রহ. যে তওবার ডাক দিয়েছিলেন তার মাধ্যমেই আজকের বাংলাদেশে ইসলামী রাজনীতির পথ সুগম করে গেছেন। ছাত্রদেরকে খেলাফত ছাত্র আন্দোলনের মাধ্যমে ছাত্র সমাজকে সংগঠিত করে হাফেজ্জী হুজুরের মিশন বাস্তবায়নের জন্য দৃঢ় প্রচেষ্টা চালাতে হবে।

খেলাফত আন্দোলনের কেন্দ্রীয় যুববিষয়ক সম্পাদক মুফতি ইলিয়াস মাদারিপুরী দাওয়াতি মাসের সফলতা কামনা করে বক্তব্য পেশ করে তিনি বলেন, বর্তমান ছাত্র সমাজকে চারিত্রিক অধ:পতনের হাত থেকে রক্ষা করতে হলে অবশ্যই ইখলাস ও নিষ্ঠার সাথে কাজ করতে হবে।

খেলাফত আন্দোলনের ঢাকা মহানগরীর যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাওলানা মাহবুবুর রহমান বলেন, খেলাফত ছাত্র আন্দোলনের প্রত্যেক সদস্যকেই দায়ীর সিফত অর্জন করতে হবে। কেননা আল্লাহ তায়ালা কুরআনে ঈমানদার ও সালেহ বান্দাদেরকে জমিনের শাসনক্ষমতা দান করার ঘোষণা দিয়েছেন।

খেলাফত ছাত্র আন্দোলনের সভাপতি মুফতি জাকির বিল্লাহ সভাপতির বক্তৃতায় বলেন, হাফেজ্জী হুজুর রহ. এর মিশন বাস্তবায়নে ছাত্র সমাজকে শিক্ষিত ও দক্ষ করে গড়ে তুলতে খেলাফত ছাত্র আন্দোলন কাজ করে যাচ্ছে। তিনি দাওয়াতি মাসকে কেন্দ্র করে সকল নেতাকর্মীকে হীনমন্যতা পরিহার করে খেলাফত ছাত্র আন্দোলনের দাওয়াত সকল স্তরের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পৌঁছে দিতে জোর আহ্বান জানান।

উক্ত অনুষ্ঠানে খেলাফত ছাত্র আন্দোলনের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক মো: জাকির হোসেন, কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মো: শাহীনুর আলম আকন্দসহ কেন্দ্রীয় ও ঢাকা মহানগরীর নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

/এসএস

মন্তব্য করুন