মাওলানা আব্দুল মালেকের সমালোচনা করায় ফরিদ মাসউদকে নিন্দা

প্রকাশিত: ৯:১১ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ১২, ২০১৮

পাবলিক ভয়েস: মাওলানা আব্দুল মালেককে বেয়াদব বলায় মাওলানা ফরীদ উদ্দীন মাসউদের বিরুদ্ধে নিন্দার ঝড় উঠেছে সোস্যাল মিডিয়ায়। গত ১০ ডিসেম্বর ২০১৮ দুবাই সফর থেকে ফিরে মাওলানা মাসউদ তার নিজ প্রতিষ্ঠান ইক্বরা মাদরাসায় ছাত্রদের নিয়ে একটি আলোচনায় বলেন, মাওলানা আব্দুল মালেককে আমার সমালোচনার যোগ্য মনে করি না।

আব্দুল মালেক আরবী লিখতে পারে না! লিখলেও ভুল হয়। সে তার ওস্তাদকে মানে না। যে ওস্তাদকে মানে না সে বেয়াদব। ১ ডিসেম্বর ২০১৮ টঙ্গী ইজতেমা ময়দানে সা’দপন্থীদের ঘটনা ফরীদ উদ্দীন মাসউদের পরিকল্পনায় হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া যায়। দেশের বিভিন্নস্থানে এ নিয়ে প্রতিবাদ হয়। ফরীদ মাসউদের ফাঁসি চেয়ে পোস্টারও ছাপা হয়।

মাওলানা মাসউদ সেই অভিযোগের জবাব দিয়ে আলোচনা করেন। তার সে আলোচনা একটি অনলাইন পোর্টালে হুবহু তুলে ধরার পর তা ভাইরাল হয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে। পরে তার সে আলোচনার ভিডিও ক্লিপও ভাইরাল হয়। ভিডিওতে দেখা যায়, মাওলানা মাসউদ মাওলানা আব্দুল মালেককে নিয়ে ছাত্রদের সামনে আপত্তিকর মন্তব্য করছেন এবং বলার ভঙ্গি ও শারীরিক ভাষাও ছিল দৃষ্টিকটু। তার সে বক্তব্য ভাইরাল হওয়ার পর প্রতিবাদ ও নিন্দার ঝড় ওঠে ফেসবুকে।

কেউ কেউ মন্তব্য করেন, মাওলানা মাসউদের ওপর তার ওস্তাদ বা মা-বাবার বদ্দোয়া আছে। কেউ লিখেছেন তিনি বিকারগ্রস্থ। কেউ মন্তব্য করেছেন মাওলানা ফরীদ উদ্দীন মাসউদ আলেম নামের কলঙ্ক। একজন লিখেছেন, মাওলানা আব্দুল মালেকের সমালোচনার বুঝতে পারলাম আমরা একজন বিদগ্ধ ও চিন্তাশীল আলেমকে হারাতে যাচ্ছি, মানে মাওলানা মাসউদ পদচ্যুত হচ্ছেন।

NIQ

 

 

 

 

 

মন্তব্য করুন