মনোনয়ন জমা দিয়েছেন মুফতী ফয়জুল করীম

প্রকাশিত: ৩:৪৬ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ২৮, ২০১৮
মুফতী ফয়জুল করীমের পক্ষ থেকে মনোনয়ন জমা দিচ্ছেন বরিশালের নেতৃবৃন্দরা

বরিশাল ৫ আসনে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নিতে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের সিনিয়র নায়েবে আমীর মুফতী সৈয়দ ফয়জুল করীম।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে হাতপাখা প্রতীকে ইসলামী আন্দোলনের পক্ষে নির্বাচন করবেন তিনি।

মুফতি সৈয়দ ফয়জুল করীমের পক্ষে এই মনোনয়ন পত্র জমা দেন বরিশাল সিটি কর্পোরেশনে ইসলামী আন্দোলনের পক্ষ থেকে প্রতিদন্ধিতা করা প্রার্থী মুফতী উবায়দুর রহমান মাহবুব সাহেব। যিনি বরিশালের ঐতিহ্যবাহী মাহমূদীয়া মাদরাসার স্বনামধন্য প্রিন্সিপাল। তার সাথে আরো ছিলো বরিশাল ইসলামী আন্দোলনের অনেক নেতৃবৃন্দ।

২৮ নভেম্বর বেলা বারোটার দিকে মুফতী ফয়জুল করীমের পক্ষ থেকে বরিশাল নির্বাচন অফিসে মনোনয়নপত্র জমা দেন তারা।


ইসলামী আন্দোলন নেতাকর্মীদের সাথে আলোচনা করে জানা যায়, বরিশালে ইসলামী আন্দোলন মুফতী ফয়জুল করীমের পক্ষে ব্যাপক প্রস্তুতি নিয়ে আগাচ্ছে। বরিশাল শহরসহ আশেপাশে ব্যাপক প্রস্তুতি নিচ্ছে তারা। বিশেষত বরিশালের চরমোনাই ইউনিয়নে একক রিজার্ভ ভোট রয়েছে তাদের। সুষ্ঠু এবং নিরপেক্ষ ভোট হলে এ আসনে ফয়জুল করীমের জয়ের ব্যাপারে তারা আশাবাদী।


বরিশাল-৫ সংসদীয় ১২৩ নং আসনটি বরিশাল সিটি কর্পোরেশনভুক্ত এলাকা এবং বরিশাল সদর উপজেলা নিয়ে গঠিত। যেখানে সর্বমোট ভোটার রয়েছে ৩,৯৭,২৩০ জন।সারাদেশে ব্যাপক পরিচিতির কারনে স্থানীয় জনগনের মধ্যে ফয়জুল করীমের ব্যাপারে বেশ পজেটিভ ধারনা রয়েছে। সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে ফয়জুল করীম জরগনের দ্বারে গিয়েছেন উবায়দুর রহমান মাহবুব সাহেবের পক্ষ হয়ে ।জাতীয় নির্বাচনে সে ইমেজ তার কাজে লাগবে বলে ধারনা করছেন নির্বাচনবোদ্ধারা

সংসদ নির্বাচন অর্থাত ১৪ সালের ৫-জানুয়ারির নির্বাচনে আওয়ামীলীগের পক্ষ থেকে বিনা প্রতিদন্ধিতায় এ্যাড. শওকত হোসের হিরণ নির্বাচিত হয়েছিলেন এমপি হিসেবে। তার আগে এ আসনটি সব সময়ই বিএনপির দখলে ছিলো। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে এ আসনটি কার ভাগে যাবে তা জানা যাবে ৩০ ডিসেম্বর নির্বাচনের পরেই।

H/R

মন্তব্য করুন